৩রা অগ্রহায়ণ, ১৪২৪
ডিসে ৩১২০১৬
 
 ৩১/১২/২০১৬  Posted by

বাপ্পাদিত্য দাসের কবিতা


….এবং ভ্রমণ

তুমি শিখে গেছ উড়ে যাওয়ার কৌশল। হাওয়া দিলেই নির্ঘাত উড়ে যাবে জানি। শুধু পড়ে থাকবে নিথর শরীর। ওই তো চাহনি ফেলার দূরত্বে স্টিমার ভিড়ল বোলে। তড়িঘড়ি ব্যাগপত্র গোছাও এবার তো বেরুতে হবে। খুব বেশী লাগেজ বাড়িও না। অনেক পথ তো এখনো যেতে হবে। বিশ্রামালয় কবে পাবে? তা কি আর আমিও জানি ছাই! এ পথ তো আমারও অচেনা। ……আরে! কলমের কাছে এসে আটকে গেলে যে! ভাবছতো নেবে কিনা? নিও না। রেখে যাও কেউ এসে নিতে চাইলে নিতে পারে। তুমি যেখানে যাচ্ছ সেখানে কাগজ কই যে লিখবে! যদি কিছু লিখতে হয় হাওয়া যেমন জলের বুকে লেখে তেমনি করে লেখ, মন দিয়ে আর এক মনে আলতো করে। আর দেরি কোরো না। চল এবার বেরিয়ে পড়ি….


পূর্ণছেদ!

ঠিক এভাবেই একদিন শেষ হয়ে যাবে। বলেছিল সংখ্যাতত্ত্ববিদেরা। হঠাৎ একদিন নদীরা ওয়ার্ক আউট করবে। শ্বাস-প্রশ্বাস ব্ল্যাক ডে পালন করবে কর্মবিরতীর শ্লোগান দিয়ে। তখনও তুমি ঠায় বসে থাকবে চিতার পাশে। কারণ শেষ জলের ঝাপটাটা তোমাকেই দিতে হবে যে!


জ্বরের উপকথা

জ্বর আসছে আবার অনেকদিন বাদে দু’কুল ছাপিয়ে। চোখের পাতায় নামছে স্নেহময়ী প্লাবণ । আমি ভুলে যাচ্ছি কোনটা আমার স্টেশন। দূরগামী বিপরীতমুখী ট্রেন চুরি করে নিয়ে যাচ্ছে আমার সমস্ত বর্তমান। দূরত্বে ক্রমশ দূরত্বে থাকা আপাত হলদে হওয়া ধূসর অতীত নাভীমূল থেকে উঠে এসে আমার ঠোঁট ছুঁয়ে গেল। শরীরের কোন গভীর অতি গভীর কোন তল থেকে উঠে আসছে পূর্বজন্মের কোন গোপন স্পর্শ। বিছানায় ছড়িয়ে থাকে টুকরো টুকরো জ্বরের উষ্ণতা। চৌকনা মেঘটিকে কেমন বিষণ্ণ দেখায় জানলা ক্যামেরায়। এসময় চারিদিকে রোদ ঘিরে ঘিরে ধরে খুব। রোদের মধ্যে ভেসে ওঠে গতজন্মের টুকরো-টাকরা স্মৃতি। মাথার মধ্যে তখন জাতিস্মর জাতিস্মর অসুখ করে খুব।


উইটনেস

গলিতে গলিতে কানাঘুষা। পাড়া প্রতিবেশীদের মুখ চাওয়াচায়ী। কালির দোয়াতে বেওয়ারিস লাশ। আত্মহত্যা নাকি ইচ্ছামৃত্যু? শুকনো কালির ঠোঁট প্রাথমিক সন্দেহের তালিকায়। তখনও ফরেন্সিক ডিপার্টমেন্টের গাড়ী শহর ছাড়েনি।


লাশ

বাইরে তুমুল বৃষ্টি। পাশাপাশি ভিজে চলেছে দুটো উনুন। তাদের একটাই জ্বালামুখ। কালো ত্রিপলে ঢাকা। গত শীতকালেও দেখেছি এই দুটো উনুনকে ঘিরে মেতে ওঠা একটা পরিবার, সুখী সুখী দাম্পত্য সুখ, মুলো আর চিংড়িমাছের টক দিয়ে সেরে ফেলা মধ্যাহ্ন ভোজ। আয়ুরেখা বরাবর তখনও একটা যুবুথুবু শীতকাল।

আমার হাতের সিগারেট এখন পুড়তে পুড়তে প্রায় ফিল্টারে। এষ্ট্রেটা কখন জানি অস্থিঘট হয়ে গেছে !

*****
ডাকযোগের ঠিকানা :
গ্রাম : রায়চক               
পোষ্ট : : আশুতিয়াবাড়
থানা : মঠ-চন্ডীপুর
জেলা : পূর্ব মেদিনীপুর
পিন : ৭২১৬৫৯
চলভাষ – ৯০৮৮৭৫৪৯০৮/9679955543
e-mail : bappaditya.jgec@gmail.com

Loadingপ্রিয় তালিকায় রাখুন!
E